21 C
Kolkata
Sunday, December 4, 2022
More

    বিজেপি পরিচালিত সরকার স্বৈরাচারী ও অগণতান্ত্রিক: মমতা ব্যানার্জী

    দ্য ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো: গতকাল কৃষক বিল পাসের সময়ে রাজ্যসভায় হাঙ্গামা বাধায় বিরোধী দলের সংসদরা। ডেপুটি স্পিকারের ওয়েলে নেমে হাঙ্গামা করার জন্য আট সাংসদকে এক সপ্তাহের জন্য সাসপেন্ড করা হয়েছে। এই বিষয় বিজেপি’র ‘স্বৈরাচারী’ মনোভাবের পরিচায়ক আর এই অগণতান্ত্রিক মনোভাবী সরকারের বিরুদ্ধে লড়াই চালিয়ে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

    আজ সোমবার একটি টুইট করে মুখ্যমন্ত্রী লেখেন, ‘কৃষকদের স্বার্থ রক্ষার জন্য লড়াই করা আটজন সাংসদের সাসপেনশনের ঘটনা দুর্ভাগ্যজনক এবং স্বৈরাচারী সরকারের মানসিকতাকে তুলে ধরছে। যারা গণতান্ত্রিক নিয়ম ও নীতিকে সম্মান করে না। আমরা মাথা নত করব না এবং সংসদ ও রাস্তায় নেমে এই ফ্যাসিবাদী সরকারের বিরুদ্ধে লড়াই করব।’

    উল্লেখ্য, রবিবার রাজ্যসভায় দুটি কৃষি বিল পেশের সময় প্রাথমিকভাবে হই-হট্টগোল হলেও পরিস্থিতি নিয়ন্ত্র্ণে ছিল। কিন্তু নির্ধারিত সময়ের (দুপুর একটা) পরও অধিবেশন চালিয়ে যাওয়া নিয়ে আপত্তি জানান বিরোধীরা। প্রাথমিকভাবে কংগ্রেস সাংসদ গুলাম নবি আজাদ বলেন, সর্বদলের সম্মতি ভিন্ন সেই অধিবেশনের সময় বাড়ানো যাবে না। তবুও ডেপুটি স্পিকার অধিবেশন চালিয়ে যান। আর তা নিয়েই সংসদের উচ্চকক্ষে হাঙ্গামা শুরু হয়।

    এই সময়ে সংসদের নিয়ম ভেঙেই ওয়েলে নেমে ডেপুটি চেয়ারম্যান হরিবংশকে রুলবুক দেখান ডেরেক। এমনকি বিবাদ এতটাই বেড়ে যায় যে লাইভ টিভিতে দেখা যায় যে প্রতিবাদের সময় চেয়ারম্যানের ডেস্কের মাইক্রোফোন ভেঙে ফেলেন কয়েকজন সাংসদ। ডেপুটি চেয়ারম্যানের কাছে দাঁড়িয়ে প্রতিবাদের পাশাপাশি ডেরেক ও’ ব্রায়েনের কাগজ ছিঁড়ে দেওয়ার দৃশ্যও ক্যামেরায় ধরা পড়ে। আর সেই ঘটনারই কড়া নিন্দা করেছে বিজেপি।

    এই ঘটনার পর সারা দেশেই নিন্দার ঝড় বয়ে যায়। বিশেষ করে ডেরেক ও’ব্রায়েনের ঐভাবে ওয়েলে নেমে যাওয়া অনেকেই পছন্দ করেন নি। এই বিষয়ে সোমবার সকালে কেন্দ্রীয় সরকারপক্ষের তরফে আট সাংসদকে সাসপেন্ড করার জন্য প্রস্তাব উত্থাপন করা হয়। যাঁরা রবিবার রাজ্যসভার হাঙ্গমায় যুক্ত ছিলেন। ধ্বনিভোটে সেই প্রস্তাব পাশ হয়ে যায়। তারপর ওই আট সাংসদকে সাসপেন্ড করে দেন রাজ্যসভার চেয়ারম্যান বেঙ্কাইয়া নাইডু।

    এই সাসপেন্ড হওয়া সাংসদ’রা হলেন – তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন ও দোলা সেন, আম আদমি পার্টির সঞ্জয় সিং, কংগ্রেসের রাজু সাতাব, সইদ নাজির হুসেন ও রিপুন বোরা এবং সিপিআইএমের কে কে রাগেশ ও ইলামারান করিম।

    প্রসঙ্গত, রবিবারের ঘটনা নিয়ে রীতিমতো ক্ষোভ প্রকাশ করেন রাজ্যসভার চেয়ারম্যান। তিনি তাঁর বিবৃতিতে জানান, কয়েকজন সাংসদ ‘টেবিলের উপর নাচছিলেন’। এই মন্তব্য করে নাইডু বলেন, ‘গতকাল রাজ্যসভার জন্য একটা বাজে দিন ছিল। কয়েকজন সদস্য ওয়েলে চলে আসেন। ডেপুটি চেয়ারম্যানকে শারীরিক নিগ্রহের হুমকি দেওয়া হয়। তাঁকে তাঁর দায়িত্ব পালনে বাধা দেওয়া হয়েছিল। এটা দুর্ভাগ্যজনক এবং নিন্দনীয়।’

    উল্লেখ্য, আজ সোমবার রাজ্যসভার চেয়ারম্যানের বক্তব্যের সময়ও ডেরেক-সহ বিরোধী সাংসদরা সরব হয়েছিলেন। এমনকি ডেরেকের নাম উল্লেখ করে চেয়ারম্যান তৃণমূল সাংসদকে কক্ষ ছেড়ে বেড়িয়ে যেতে বলেন। স্বাভাবিক ভাবেই সংসদের বাদল অধিবেশনে এই সাসপেন্ডের ঘটনা রাজনৈতিক মহলে মিশ্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি করেছে।

    Related Posts

    Comments

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here

    সেরা পছন্দ

    নজিরবিহীন ঘটনা , অশোকনগরে বৃদ্ধ দম্পতির ঘরে জন্ম নিল ফুটফুটে সন্তান

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : স্বামীর বয়স প্রায় ৭০ বছর আর তার স্ত্রীর বয়সও পঞ্চাশের বেশি। বৃদ্ধ এই দম্পতির...

    বাজিমাত করল ভারতীয় অর্থনীতি , অনেক পিছিয়ে চীন

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : ফের বাজিমাত করল ভারতীয় অর্থনীতি। সরকারি ভাবে প্রকাশিত হল চলতি অর্থবর্ষের দ্বিতীয় কোয়ার্টারের বৃদ্ধির...

    গুজরাটে ক্ষমতায় ফিরতে চলেছে বিজেপি , উত্থান আপের ! বলছে বিভিন্ন রিপোর্ট

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : গুজরাট বিধানসভা নির্বাচনে বড় ব্যবধানে জয়লাভ করবে BJP। প্রাক নির্বাচনী সমীক্ষা রিপোর্ট জানাচ্ছে, দুই...

    রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের জন্য সুখবর , বড়দিনে বাড়তি মিলবে ছুটি

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : বড়দিনে বড় আনন্দ। রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের জন্য বিরাট সুখবর। ২৬ ডিসেম্বরও ছুটি পাবেন রাজ্য...

    বঙ্গে শক্তি প্রদর্শনে RSS ! লম্বা সফরে মোহন ভাগবত

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : ৫ বছর পরে কলকাতায় প্রকাশ্য সমাবেশ করতে চলেছে রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সঙ্ঘ। আগামী ২৩ জানুয়ারি...