21 C
Kolkata
Tuesday, November 29, 2022
More

    পুরুষ ও মহিলা উভয়ই সাবধান, ভারতে হু হু করে বাড়ছে বংশানুক্রমিক স্তন ক্যানসার

    দ্য ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো: কার্ডিওভাসকুলার রোগের পর ভারতে দ্বিতীয় সবচেয়ে মারাত্মক স্বাস্থ্য ইস্যু স্তন ক্যান্সারসারা বিশ্বে ১.৪৬ মিলিয়নেরও বেশি নারী ভুগছেন স্তন ক্যান্সারে। আর ভারতেও স্তন ক্যান্সারে আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশ বাড়ছে, যার ফলে এখন দেশের প্রতি ২২ জন নারীর মধ্যে অন্তত একজন এই মারণ রোগে আক্রান্ত। বেঙ্গালুরুর ফর্টিস ক্যান্সার ইনস্টিটিউটের মেডিকেল অঙ্কোলজি এবং হেমাটো অঙ্কোলজির পরিচালক ডাঃ নীতি রাইজাদা জানিয়েছেন, ভারতে মূলত: মহিলারাই এই রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন। ভারতীয় পুরুষদের মধ্যেও এই রোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা দেখতে পাওয়া গিয়েছে।

    এই প্রসঙ্গে ডঃ রাইজাদা বলেছেন যে “স্তন ক্যান্সারের অন্তত পাঁচ থেকে ১০ শতাংশ বংশানুক্রমিক হিসেবে পরিচিত, যা পিতামাতা থেকে শিশুপর্যন্ত জিনের অস্বাভাবিকতার কারণে ঘটে। যাদের বিআরসিএ১ বা বিআরসিএ২ জিন বা কিছু বিরল জেনেটিক মিউটেশন আছে, যেমন PALB2TP53, এটিএম, পিটিএন, সিডিএইচ১ ইত্যাদি রয়েছে তাদের ক্ষেত্রে বংশানুক্রমিক স্তন ক্যান্সার (এইচবিওসি) দেখতে পাওয়া যায়। তবে, বিশেষ ক্যান্সারের ঝুঁকি সারা জীবন ধরে ধীরে ধীরে সঞ্চিত হয়।

    বিআরসিএ১ এবং বিআরসিএ২ জিন ক্যান্সারের ঝুঁকি:
    ডঃ রাইজাদা ভেঙ্গে ছেন কিভাবে স্তন ক্যান্সারের উত্তরাধিকার সূত্রে প্রাপ্ত বিপুল সংখ্যক রোগ দুটি জিনের মিউটেশনের সাথে জড়িত: বিআরসিএ১ (স্তন ক্যান্সারের জিন এক) এবং বিআরসিএ২ (স্তন ক্যান্সারের জিন দুই)।

    এই উভয় ক্যান্সার জিন কোষ ক্ষতি মেরামত এবং স্তন, ডিম্বাশয়, এবং অন্যান্য কোষ বৃদ্ধিতে সাহায্য করার জন্য পরিচিত। ডঃ রাইজাদা বলেন যে ” যখন এই জিনগুলিতে মিউটেশন থাকে তা প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে চলে যায়, তখন জিনগুলো সাধারণত স্তন, ডিম্বাশয় এবং অন্যান্য ক্যান্সারের ঝুঁকি বাড়িয়ে দেয়। এতে বলা হয়েছে, যে সব মহিলাদের স্তন ক্যান্সার ধরা পড়ে এবং তাদের কোন একটি বিআরসিএ মিউটেশন আছে তাদের স্তন ক্যান্সারের পারিবারিক ইতিহাস থাকতে পারে।”

    তিনি ব্যাখ্যা করেন যে ডিম্বাশয়ের ক্যান্সার, অগ্ন্যাশয়ের ক্যান্সার অথবা এমনকি পুরুষদের প্রস্টেট ক্যান্সারের সম্ভাবনাও বংশানুক্রমিকভাবে বৃদ্ধি পায়, যদি আপনি আপনার পিতামাতার কাছ থেকে কোন জিনের মিউটেশন কপি উত্তরাধিকার সূত্রে পেয়ে থাকেন। ডাক্তার বলেন “আপনার যদি বিআরসিএ১ বা বিআরসিএ২ জিন মিউটেশন থাকে, তাহলে স্তন ক্যান্সারের সম্ভাবনা ৮০ বছরের মধ্যে বেড়ে যাবে। উপরন্তু, ঝুঁকি পরিবারের সদস্যদের সংখ্যার উপর নির্ভর করে যাদের স্তন ক্যান্সার হয়েছে।” দুর্ভাগ্যবশত, এই জিন মিউটেশন অল্প বয়সে স্তন ক্যান্সার ধরা পড়ার সম্ভাবনা বাড়িয়ে দেয়।

    কিন্তু, এটা বোঝা সমান গুরুত্বপূর্ণ যে স্তন ক্যান্সার ধরা পড়া বেশীরভাগ মহিলার এই রোগের পারিবারিক ইতিহাস নেই; মহিলাদের স্তন ক্যান্সারের ঘনিষ্ঠ রক্ত আত্মীয় আছে যাদের ঝুঁকি বেশি। যদি কোন মহিলার আত্মীয় থাকে যার প্রথম পর্যায়ের স্তন ক্যান্সার হয়েছে অথবা যার স্তন ক্যান্সার আছে, তাদের স্তন ক্যান্সার হওয়ার ঝুঁকি বেশি থাকে।

    ডাক্তার আরও যোগ করেন যে “যদি আপনার এক স্তনে ক্যান্সার হয়, তাহলে অন্য স্তনে নতুন ক্যান্সার হওয়ার ঝুঁকি বেশি।”

    Related Posts

    Comments

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here

    সেরা পছন্দ

    চাঁদে পাকাপাকি ভাবে থাকবে মানুষ !

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : চাঁদের মাটিতে শেষবার মানুষ পা রেখেছিল গত অর্ধ শতাব্দী আগে। এই বার সেখানে ঘর-বাড়ি...

    নির্দিষ্ট কিছু পুরনো কয়েন সরিয়ে ফেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে RBI !

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : ১ টাকা এবং ৫০ পয়সা মূল্যের নির্দিষ্ট কিছু পুরনো কয়েন সরিয়ে ফেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে...

    স্বামী বিবেকানন্দর পুনর্জন্ম মোদী , বেফাঁস মন্তব্য রাহুল সিনহার

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : বেফাঁস বিজেপি নেতা রাহুল সিনহা। স্বামী বিবেকানন্দ পুনর্জন্ম নিয়ে ফিরে এসেছেন নরেন্দ্র মোদি রূপে,...

    বিশ্বকাপে আফ্রিকান দাদাগিরি ! বেলজিয়ামকে ঘায়েল করল মরক্কো

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : মরক্কো ২ আবদেলহামিদ সাবিরি (৭৩’), জাকারিয়া আবৌখাল (৯০+২’)  বেলজিয়াম ০

    ইন্ডিয়ান সুপার লিগে বিরাট জয় পেল ইস্টবেঙ্গল

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : ধারাবাহিকতার অভাবে ভুগছিল ইস্টবেঙ্গল। ইন্ডিয়ান সুপার লিগে অ্যাওয়ে ম্যাচে জামশেদপুর এফসির বিরুদ্ধে নেমেছিল ইস্টবেঙ্গল।...