22 C
Kolkata
Tuesday, January 25, 2022
More

    দারিদ্র্যের পাশাপাশি পরিযায়ী শ্রমিকের মেয়ে ইতির আশঙ্কাও বাড়ছে – নির্মলকুমার সাহা

    উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জ থেকে ৯ কিলোমিটার দূরে লহন্ডা গ্রাম। ওই গ্রামের বঙ্কিম বিশ্বাস পরিযায়ী শ্রমিক। করোনা-‌লকডাউনের আগে ছিলেন হায়দরাবাদে। এক ঠিকাদারের দলের সঙ্গে কাজ করছিলেন ওখানে। তখনও করোনা-‌আতঙ্ক শুরু হয়নি। তার আগেই মার্চের দ্বিতীয় সপ্তাহে হায়দরাবাদ থেকে এসেছিলেন গ্রামের বাড়িতে। প্রতিবার যেমন আসেন। ঠিক ছিল আবার এপ্রিলে চলে যাবেন। কিন্তু তারপর সময় গড়ায়, মার্চের পর আরও ৪ মাস কেটে যায়। কর্মহীন অবস্থায় বসে থাকতে হয় গ্রামের বাড়িতে। চেষ্টা করেছিলেন, যদি গ্রামের কাছাকাছি কোনও কাজ পাওয়া যায়। কিন্তু কোথায় কাজ পাবেন?‌ পাওয়া সম্ভব ছিল না। সংসারে তখন দারিদ্র‌্য দিনের পর দিন বেড়েই চলে। আনলক চালু হওয়ার পর কিছুটা ঝুঁকি নিয়েই, অবশেষে ২ আগস্ট আবার সেই ঠিকাদারের ডাকে পাড়ি দিয়েছেন হায়দরাবাদ। গ্রামের বাড়িতে স্ত্রী, ছেলে-‌মেয়েরা এখন অপেক্ষায়, কবে তিনি টাকা পাঠাবেন। টাকা না আসা পর্যন্ত সংসার প্রায় অচল।

    বঙ্কিম বিশ্বাসের মেয়ে ইতি অ্যাথলেটিক্স করে। উত্তর দিনাজপুরে বাড়ি হলেও গত বছর রাজ্য অ্যাথলেটিক্সে অংশ নিয়েছিল দক্ষিণ দিনাজপুরের হয়ে। অনূর্ধ্ব ১৮ বিভাগে ৮০০ মিটারে সোনা জিতেছিল। তার আগে ২০১৭ সালে রাজ্য স্কুল অ্যাথলেটিক্সে জিতেছিল রুপো। জেলা পর্যায়ে পরপর কয়েক বছর জিতেছে আরও কিছু পদক। কিন্তু এখন করোনাকালে ইতি আশঙ্কায় রয়েছে আর অ্যাথলেটিক্স করতে পারবে কিনা, তা নিয়েই। কর্ণজোড়ায় সজল দাসের কাছে ট্রেনিং নিতে যায় ইতি। গ্রামের বাড়ি থেকে অতটা দূরত্বে যেতে এখন সমস্যা। তাই কাছাকাছি দিদির বাড়িতে থেকে অনুশীলন চালাচ্ছে। ইতি বলছিল, ‘‌লকডাউনের জন্য অনেকদিন প্র‌্যাকটিস বন্ধ ছিল। এখন দিদির বাড়িতে থেকে প্র‌্যাকটিস করছি।’‌

    রামপুর ইন্দিরা উচ্চ বিদ্যাপিঠের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রী ইতি বিশ্বাস বলল, ‘‌এমনিতে আমাদের টানাটানির সংসার। বাবার টানা এতদিন কাজ না থাকায় সেই সমস্যা আরও অনেক বেড়েছে। বাড়ির অবস্থা এখন এতটাই খারাপ, আর অ্যাথলেটিক্স করতে পারব কিনা, জানি না!‌ হয়ত ছেড়ে দিতে হবে। খেলাধুলো করার বাড়তি খরচ বাবা আর চালাতে পারবেন বলে মনে হয় না!‌’‌ ‌‌               

    Related Posts

    Comments

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here

    সেরা পছন্দ

    ভোটের মুখে বড় ধাক্কা খেল কংগ্রেস , বিজেপিতে যোগ দিলেন গান্ধী পরিবার ঘনিষ্ট নেতা

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : জল্পনাতে সিলমোহর। দল ছাড়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই BJP-তে যোগ দিলেন কংগ্রেস নেতা তথা প্রাক্তন কেন্দ্রীয়...

    দেশে একধাক্কায় অনেকটা কমল করোনা সংক্রমন , বাড়ছে সুস্থতা

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : স্বস্তি জাগিয়ে একধাক্কায় অনেকটা কমল দেশের দৈনিক সংক্রমণ। গত কয়েকদিন ধরে নিম্নমুখী দেশের করোনা...

    কাপড়ের মাস্ক পুরোপুরি আটকাতে পারবে না করোনা সংক্রমন , বলছে বিশেষজ্ঞরা

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : করোনা ঠেকাতে মাস্ক আবশ্যক। একথা প্রথম দিন থেকে বলে আসছেন বিশেষজ্ঞরা। উৎসবের দিনে বেশিরভাগ...

    পিছু ছাড়ছে না শীতের বৃষ্টি , তবে পরশু থেকে হাওয়া বদল

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : শীতেও পিছু ছাড়ছে না বৃষ্টি। মঙ্গলবারও মেঘলা আকাশ সঙ্গে দু-এক পশলা বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে...

    রাজ্যে আরও কমল করোনা সংক্রমন , ঊর্ধ্বমুখী সুস্থতা

    দ্যা ক্যালকাটা মিরর ব্যুরো : একটু একটু করে সুস্থতার পথে বাংলা। এক ধাক্কায় অনেকটা কমল রাজ্যের সংক্রমণ। গত ২৪...